1. admin@dhakareport.com : Dhakareport.com :
গুনে গুনে দেড় বছর পর বিয়ে করেছি : অদিতি - Dhaka Report
সোমবার, ২৫ অক্টোবর ২০২১, ০১:৩০ অপরাহ্ন

গুনে গুনে দেড় বছর পর বিয়ে করেছি : অদিতি

নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ২ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ২৯ বার

বিচ্ছেদের দেড় বছর পর একেবারে ঘরোয়া আয়োজনে দুই পরিবারের উপস্থিতিতে বিয়ে করেছি। ২০১৯ সালের আগস্ট মাসে অপূর্বের সাথে আমার ডির্ভোস হয়। তবে আমি বিয়ে করেছি চলতি বছরের জানুয়ারিতে। গুনে গুনে দেড় বছর পর সম্পূর্ণ পারিবারিকভাবে বিয়ে করি। কাছের মানুষ জন সবাই দ্বিতীয় বিয়ের ব্যাপারে অবগত। আমি চাইনি দ্বিতীয় বিয়ে নিয়ে নাচানাচি হোক। সেই মন মানসিকতাও ছিল না। মানুষকে জানানো আমার জন্য লজ্জাজনক ছিল। এভাবেই দ্বিতীয় বিয়ে প্রসঙ্গে বললেন, অভিনেতা জিয়াউল ফারুক অপূর্বের সাবেক স্ত্রী নাজিয়া হাসান অদিতি।

চলতি বছরের শুরুতে মাহবুব পারভেজকে তিনি বিয়ে করেন। তিনি একটি কর্পোরেট অফিসে চাকরি করে জানিয়ে অদিতি বলেন, আসলে বিয়েটা আমি আনন্দের সাথে করিনি। বিয়ে একটা করতে হবে তাই করেছি। বাবা-মায়ের প্রেসারের কারণে বিয়েটি করতে হয়েছে। বিয়ের সময় অপূর্বকেও জানিয়েছি। সবার জানা দরকার আমি অপূর্বের কোনো বন্ধুকে বিয়ে করিনি। আমার কোনো পরকীয়া ছিল না।

নাজিয়া হাসান অদিতি বলেন, আমার যখন মাহবুব পারভেজের সাথে পরিচয় হয়, তখন বাসা থেকে বিয়ের জন্য ছেলে দেখছিল। সেটা জেনে পারভেজ আমার বাসায় বিয়ের প্রস্তাব দেয়। তার প্রস্তাব আমার পরিবার গ্রহণ করে এবং উভয় পরিবারের ইচ্ছাতে আমাদের বিয়ে হয়। করোনার কারণে কোনো আয়োজন হয়নি। সামনেও করতে চাই না। বলতেই হয়, পারভেজ অমায়িক একজন মানুষ।

তিনি বলেন, বিয়ের ব্যাপারে অপূর্ব খুব ভালোভাবে অবগত। আমি ফেসবুকে পোস্ট করে জানাতে চাইনি। আমার শ্বশুর বাড়ির লোকজনও চায়নি। এখন সাধারণভাবে থাকতে চাই। অপূর্বের সাথে থাকাকালীন হাসি-খুশির অনেক ছবি পোস্ট করেছি। কিন্তু এবার আমি ঠিক করেছি, ব্যক্তিগত জীবন একেবারে ব্যক্তিগত রাখতে চাই।

তিনি আরো বলেন, গতকাল অপূর্বকে নিয়ে স্ট্যাটাস দেওয়াতে অপূর্বর ভক্তরা বিয়ের ছবিটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়। আমি জানি না অপূর্ব সরাসরি করছে কি না। তার ভক্তরা সাথে সাথে বিরূপ মন্তব্য করা শুরু করে। আমাকে সেইম কাতারে ফেলার চেষ্টা করছে। এটার জন্য আমি প্রস্তুত ছিলাম না। তবে এতে খুব একটা অবাক হইনি।

ছবিটি কীভাবে ছড়িয়ে যায়? ঠিক জানি না কীভাবে ছড়িয়ে গেছে। হয়তো আমার পরিবারের লোকজন কাউকে দিয়েছে, সেখান থেকে এক হাত দু-হাত হয়েছে। এরপর অপূর্বের ভক্তদের কাছে চলে যায়। এভাবেই ছড়িয়ে যায় নেট দুনিয়ায়।

ছবি ছড়িয়ে গেলেও এতে অবাক নন বা সমস্যা নেই জানিয়ে অদিতি বলেন, আমার বিয়ের কথা তারিন (তারিন জাহান) আপু, শিহাব শাহীন, মিজানুর রহমান আরিয়ান থেকে শুরু করে মিডিয়ার সবাই অবগত। ফেসবুকে ছবি দিয়ে অশান্তিতে থাকতে চাই না। বর্তমানে আয়াশ আমার কাছেই থাকে। মাঝে মাঝে ওর বাবার কাছে যায়।

উল্লেখ্য, ২০১০ সালের ১৪ জুলাই অপূর্ব পারিবারিকভাবে নাজিয়া হাসান অদিতিকে বিয়ে করেন। তাদের ঘরে আয়াশ নামে এক পুত্র সন্তান রয়েছে। ২০২০ সালে নাজিয়া হাসান অদিতির সঙ্গে ভেঙে যায় অপূর্বের দ্বিতীয় সংসার। ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে দীর্ঘ ৯ বছরের সংসার জীবনের ইতি টানেন অভিনেতা অপূর্ব। ২০২০ সালের ১৭ মার্চ করোনা মহামারির মধ্যে ফেসবুক পাতায় লিখে বিচ্ছেদের কথা জানান অদিতি।

Please Share This Post in Your Social Media

এ জাতীয় আরো সংবাদ




Shares