সারা বাংলা

স্বজনপ্রীতি ও দূর্নীতি  

হাসান হৃদয় (নোয়াখালী) প্রতিনিধি   : স্বজনপ্রীতি-দুর্নীতিসহ নানা অভিযোগে নোয়াখালীর সুবর্ণচর উপজেলার ২ নং চরবাটা ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হোসেনের বিরুদ্ধে অনাস্থা জানিয়ে ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য জেলা প্রশাসকের কাছে লিখিত আবেদন করেছেন আট সদস্য। গত বৃহস্পতিবার তারা এ আবেদন করেন।

জানা গেছে, চরবাটা ইউপির সংরক্ষিত ওয়ার্ডের নারী সদস্যসহ ১২ জন সদস্য রয়েছেন। এর মধ্যে আটজন সদস্য চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হোসেনের বিরুদ্ধে লিখিতভাবে অনাস্থা জানিয়ে আবেদন করেছেন। এরা হলেন— ১ নং ওয়ার্ডের সদস্য নূর আলম শুক্কুর, ২ নং ওয়ার্ডের গোলাম মাওলা, ৩ নং ওয়ার্ডের গোলাম হোসেন রাসেল, ৪ নং ওয়ার্ডের মোস্তফা পারভেজ, ৬ নং ওয়ার্ডের পানাফের রসুল খাজা, ৭ নং ওয়ার্ডের সদস্য আব্দুল করিম মধু, ৮ নং ওয়ার্ডের আকবর হোসেন শাহনাজ ও ১ নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত নারী সদস্য রাহেনা আক্তার ছাপা।

লিখিত আবেদনে ইউপি সদস্যরা উল্লেখ করেন, ২০১৬ সালের এপ্রিলে দায়িত্ব গ্রহণ করার পর স্বজনপ্রীতি, দুর্নীতি, অনিয়ম, চাঁদা আদায়সহ নানা অপরাধে জড়িয়ে পড়েছেন চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হোসেন। তার অপকর্মের বিরোধিতা করে সদস্যরা তাকে বারবার সতর্ক করলেও তিনি নিজেকে সংশোধন করেননি। এ কারণে গত ৫ আগস্ট পরিষদের সভায় ইউপি সদস্যরা তার বিরুদ্ধে অনাস্থা জানান।

অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হোসেন বলেন, তার বিরুদ্ধে কী অভিযোগ, তা তিনিই জানেন না। পরে অভিযোগগুলো পড়ে শোনালে তিনি বলেন, যেসব অভিযোগ উত্থাপন করা হয়েছে, তা ভিত্তিহীন।

ইউপি সদস্যদের আবেদন পাওয়ার কথা স্বীকার করেছেন নোয়াখালীর জেলা প্রশাসক তন্ময় দাস। তিনি বলেন, আগামীকাল অফিস খোলার পর তিনি অভিযোগ তদন্তের ব্যবস্থা করবেন।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Newsletter

Dhaka Report Worldwide is a popular online newsportal and going source for technical and digital content for its influential audience around the globe. You can reach us via email or phone.

News247 Worldwide is a popular online newsportal and going source for technical and digital content for its influential audience around the globe. You can reach us via email or phone.